Powered by Ajaxy
Jan 13, 2021
283 Views
Comments Off on নগদ একাউন্ট খোলার নিয়ম | How to Open A Nagad Account

নগদ একাউন্ট খোলার নিয়ম | How to Open A Nagad Account

Written by

নগদ কি?

ডাক বিভাগের ডিজিটাল মোবাইল ব্যাংকিং হচ্ছে নগদ। এটি টেকনোলজি লিমিটেড কর্তৃক পরিচালিত। এটি বাংলাদেশ ডাক বিভাগের পূর্বে চালুকৃত পোস্টাল ক্যাশ কার্ড এবং ইলেকট্রনিক মানি ট্রান্সফার সিস্টেম (ইএমটিএস)-এর নতুন সংস্করণ।

নগদ একাউন্ট খোলার নিয়ম

নগদের উদ্যোক্তা বা এজেন্টের কাছে গিয়ে কাগজপত্র দিয়ে একাউন্ট খোলার পাশাপাশি আপনি ঘরে বসে নিজের একাউন্ট নিজেই খুলতে পারবেন। নিয়ম নিচে জেনে নিন।

নগদ অ্যাপ থেকে

নগদ একাউন্ট খোলা অনেক সহজ। আপনি ঘরে বসেই নগদ একাউন্ট খুলতে পারবেন। নগদ একাউন্ট খুলতে –

  • প্লে স্টোর কিংবা অ্যাপ স্টোর থেকে “Nagad App” ডাউনলোড করুন
  • অ্যাপ ডাউনলোডের পর ওপেন করে প্রদত্ত নির্দেশনা অনুসরণ করুন।
  • জাতীয় পরিচয়পত্রের উভয় পিঠের ছবি আপলোড করুন
  • একটি সেল্ফি তুলে একাউন্টে যুক্ত করুন
  • টার্মস এবং কন্ডিশনস পড়ুন
  • আপনার সিগনেচার প্রদান করুন
  • উপরোক্ত সকল তথ্য সঠিকভাবে প্রদান করা হয়ে গেলে আপনি নগদ এর সেবা উপভোগ করতে পারবেন।

গ্রামীণফোন, রবি এবং এয়ারটেল সিম থেকে

গ্রামীণফোন, রবি এবং এয়ারটেল সিম যারা ব্যবহার করেন, তাদের জন্য নগদ একাউন্ট খোলা আরো সহজ। জিপি, রবি এবং এয়ারটেল সিম ব্যবহারকারীগণ *167# ডায়াল করে নিজের একাউন্টের পিন কোড সেট করলেই একটিভ হয়ে যাবে নগদ একাউন্ট। তারপর উপভোগ করুন নগদের সকল সুবিধা!

নগদ একাউন্ট দেখার কোড

যেকোনো সময় মোবাইল থেকে *১৬৭# ডায়াল করে নগদ একাউন্ট দেখতে পারেন। এছাড়া অ্যাপ থেকে নগদ একাউন্ট ব্যালেন্স দেখা ও অন্যান্য কাজ করার সুযোগ তো থাকছেই!

নগদ একাউন্টের পিন ভুলে গেলে

আপনি যদি নগদ একাউন্টের পিন নাম্বার ভুলে যান। চিন্তা করবেন না। আপনি নগদ হেল্প লাইনে কথা বলে নতুন পাসওয়ার্ড নগদে বসাতে পারবেন। এতে নগদ হেল্প লাইন থেকে আপনাকে কিছু তথ্য জিজ্ঞেস করবে।

হয়তো জিজ্ঞেস করতে পারে আপনি সর্বশেষ কখন টাকা লেনদেন করেছেন? হয়তো বা জিজ্ঞেস করতে পারে এই নগদ একাউন্টি কার নামে রেজিষ্ট্রেশন করা আছে। সঠিক তথ্য প্রদান করলে নগদ আপনাকে সাথে সাথে একটি মেসেজ সেন্ড করবে। সেই মেসেজে একটি টোকেন কোড থাকবে।

এই টোকেন ব্যাবহার করেই আপনি নতুন পিন নাম্বার সেটাপ করতে পারবেন। এজন্য নিচের ধাপগুলো আপনাকে অবশ্যই অনুসরণ করতে হবে।

প্রথমে ৬ সংখ্যার টোকেন নাম্বারটি মনে রাখুন বা কপি করুন।
তারপর *167# ডায়াল করতে হবে।

এখন Enter New Pin নামে একটি অপশন আসবে। সেখানে ৬ সংখ্যার টোকেন নাম্বারটি দিতে হবে।

তারপর আবার প্রায় একই অপশন আসবে। সেখানে আপনি নতুন পিন নাম্বার হিসাবে যা রাখতে চাচ্ছেন তা দিতে হবে। খেয়াল রাখবেন যাতে ভূল না হয়। এমনকি নতুন পিন দেওয়ার সময় কেউ জেনো না দেখে।

সাধারণত এই পিন নাম্বার চার সংখ্যার হয়ে থাকে। তবে কোনো ক্রমিক সংখ্যা দেওয়া যাবে না।
পরিশেষে পুনরায় উক্ত পিন নাম্বার দিয়ে কনফ্রাম করুন।

এই ধাপ সমূহ অনুসরণ করে আপনার নগদ একাউন্টের পিন ভুলে গেলেও নতুন পিন নাম্বার সেটাপ করতে পারবেন।

তবে পিন নাম্বার মনে রাখা বুদ্ধিমানের কাজ। তাই আপনি চাইলে পিন নাম্বারটি আপনার ঘরে কোনো জাগায় লিখে রাখতে পারেন। এমন কি কোনো ডায়রি অথবা খাতায় লিখে রাখতে পারেন। আবার ও বলি কারো সাথে পিন নাম্বার শেয়ার করবেন না।

নগদ হেল্পলাইন নাম্বার

আপনার নগদ একাউন্টে কোনো সমস্যা দেখা দিলে, আপনি হেল্প নিতে পারবেন। আপনি যদি কোনো কারণ বসত আপনার নগদ একাউন্ট পিন ভূলে যান তাহলে হেল্প লাইনে কল করে সমাধান করতে পারবেন। নগদ হেল্পলাইন বা কাস্টমার কেয়ার নাম্বার হচ্ছে 16167 or 09609616167

নগদে মোবাইল রিচার্জ এর নিয়ম

আপনি নগদ অ্যাকাউন্টের মাধ্যমে যে কোনো সময় মোবাইল রিচার্জ করতে পারবেন। আপনাকে কিছু ধাপ প্লো করতে হবে। ধাপ গুলো হলো

* নগদ মোবাইল মেন্যু ওপেন করুন।

* নম্বর দিন

*পরিমাণ লিখুন

*ব্যালেন্স রিসিভ করুন

খুব সহজে আপনার মোবাইল রিচার্জ হয়ে গেলো। তারপর আপনি একটি কনফার্মেশন মেসেজ পাবেন। নগদ অ্যাকাউন্ট দিয়ে আপনি নিচের মোবাইল অপারেটরগুলোর প্রিপেইড রিচার্জ করতে পারবেন। এমন কি পোস্ট-পেইড বিল পরিশোধ করতে পারবেন খুব সহজে।
*গ্রামীণফোন।
*রবি
*এয়ারটেল টেলিটক।

নগদ বিল পে

আপনি নগদ একাউন্টের মাধ্যমে বিদ্যুৎ বিল পরিশোধ করতে পারবেন। নগদ বিল পে সার্ভিসের মাধ্যমে বিল দিতে পারবেন যখন ইচ্ছা তখন।

বর্তমান যুগে মানুষ এখন অনেক ব্যস্ত। মানুষের এই ব্যস্ত জীবনকে সহজ করে দিয়েছে মোবাইল ব্যাংকিং সেবা। মানুষ এখন চাইলেই খুব সহজে যেকোন জায়গা থেকে যেকোন সময় মোবাইল ব্যাংকিং সেবা গ্রহণ করতে পারেন। তাই আপনার জীবনকে আরো সহজ করতে এবং সময় বাঁচাতে নগদ নিয়ে এসেছে বিল পে সার্ভিস। মাত্র কয়েক মিনিটের মাধ্যমে অল্প সময়ে আপনি বিল পে করতে পারবেন।

এখন থেকে আপনার বিদ্যুৎ, পানি, গ্যাস, টেলিফোন, ইন্টারনেট ও অন্যান্য বিলের পেমেন্ট করতে লাইনে দাঁড়িয়ে অপেক্ষা করতে হবে না।

আপনি ঘরে বাইরে বা যেখানেই থাকুন না কেন নগদ বিল পে সার্ভিসের মাধ্যমে বিল দিতে পারবেন আপনার ইচ্ছা মতো।

নগদ  বিল পে সার্ভিস ব্যবহার করে আপনি নিম্নলিখিত বিলারদের বিলগুলি পরিশোধ করতে পারবেন।

১। বিটিসিএল টেলিফোন।

২। বিটিসিএল ডোমেইন।

৩। ডিপিডিসি এইচআর।

৪। বাংলাদেশ কম্পিউটার কাউন্সিল।

৫। ডেসকো

৬। ডিপিডিসি

৭। জালালাবাদ গ্যাস।

৮। ঢাকা ওয়াসা।

৯। খুলনা ওয়াসা

১০। স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের কোভিড-১৯ টেস্ট হোম

১১। স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের কোভিড-১৯ টেস্ট বুথ

১২। বিএমইটি

১৩। একাদশ শ্রেণির ভর্তি

১৪। স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের বিদেশগামী বুথ কোভিড-১৯ টেস্ট

১৫। খুলনা গ্যাস

১৬। তিতাস গ্যাস নন মিটারড ডিমান্ড নোট

১৭। তিতাস গ্যাস নন মিটারড ডোমিস্টিক

১৮। সোনালী লাইফ ইন্স্যুরেন্স লিঃ

১৯। আকাশ ডিটিএইচ।

Article Categories:
Mobile

Comments are closed.