Sep 29, 2021
21 Views
Comments Off on কাইনমাস্টার প্রো এপিক ডাউনলোড করুন । ওয়াটারমার্ক ছাড়াই এডিট

কাইনমাস্টার প্রো এপিক ডাউনলোড করুন । ওয়াটারমার্ক ছাড়াই এডিট

Written by

কাইনমাস্টার ওয়াটারমার্ক ছাড়াই ভিডিও এডিট: আজকের ব্লগে আমরা কাইনমাস্টার ডায়মন্ড (Kinemaster Diamond) এপ্লিকেশন ডাউনলোড করার লিংক শেয়ার করবো। যেখানে    কাইনমাস্টার ওয়াটারমার্ক ছাড়াই ভিডিও এডিট করা যায়। সম্পুর্ণ হাই-কোয়ালিটিতে ভিডিও এক্সপোর্ট করা যায়। পাশাপাশি সকল প্রেমিয়াম ফিচারে ফ্রীতেই এক্সেস পাওয়া যায়।

পুরো ব্লগ না পড়তে চাইলে স্কীপ করে একদম নিচে গিয়ে ডাউনলোড করার গুগল- ড্রাইভ লিংক নিয়ে নিন!

আপনি কি কোন কাইনমাস্টার ওয়াটারমার্ক ছাড়াই ভিডিও এডিট করা যায় এরকম অ্যাপ্লিকেশন চাচ্ছেন? তাহলে কাইনমাস্টার ডায়মন্ড হবে আপনার জন্য যথোপযোগী। তার কারণ কাইনমাস্টার ডায়মন্ড কাইনমাস্টার প্রো এর আপডেট ভার্সন এবং প্রেমিয়াম। এখানে কাইনমাস্টার প্রো থেকে যে সকল সুবিধা প্রেমিয়াম কিনলে পাবেন, ওই একই সুবিধা কাইনমাস্টার ডায়মন্ডে ফ্রীতে পেয়ে যাবেন।

কাইনমাস্টার ডায়মন্ড এর যদি অরিজিনাল অ্যাপ্লিকেশনের ডাউনলোড করতে চান। তাহলে এই ব্লগে পেয়ে যাবেন এর ডাউনলোড লিংক।

আপনি চাইলে কাইনমাস্টার ডায়মন্ড অ্যাপ্লিকেশনটি ডাউনলোড করতে পারেন এখান থেকেই। কাইনমাস্টার ডায়মন্ড বিভিন্ন প্রেমিয়াম ফিচারের মধ্যে আছেঃ কোন ওয়াটারমার্ক ছাড়া ভিডিও এডিট, পাশাপাশি এটি আপনাকে পুরো প্রেমিয়াম মেম্বারশিপ এর সকল সুবিধা দিবে।

কেনো কাইনমাস্টার ডায়মন্ড app ডাউনলোড করবেন?

কাইনমাস্টার ডায়মন্ড (Kinemaster Diamond) একটি বিখ্যাত অ্যান্ড্রয়েড ভিডিও এডিটর। এবং এটি একটি প্রিমিয়াম অ্যাপ্লিকেশন, যেটি আমি আপনাদের কে ফ্রিতেই ডাউনলোড করতে দিচ্ছি। এটি অন্যান্য viva video কিংবা ভিডিও এডিটর থেকে অনেক বেশি ভালো। এবং এখানে অটোমেটিক্যালি ভিডিও এডিটর(Editor) আছে। অন্যান্য ভিডিও এডিটিং টুলস, যেমনঃ Power Director থেকেও উন্নত। কাইনমাস্টার ওয়াটারমার্ক ছাড়া সুন্দর এডিটিং হয়।

যদি আপনি একটি ভিডিও প্রফেশনালদের মতো এডিট করতে চান, বিএফএক্স গ্রাফিক্স এড করতে চান। তবে কাইনমাস্টার ডায়মন্ড আপনার জন্য বেস্ট হবে। যারা নতুন, অর্থাৎ ভালো ভিডিও এডিটর করতে জানেন না। তারা চাইলে এটি ব্যবহার করতে পারবেন। খুব সহজ ব্যবহার করা। যেকোন জটিল ভিডিও বা কমপ্লেক্স ভিডিও এডিটিং ফিচার আছে। এটি অনেক বেশি সহজ ব্যবহার করা। তাছাড়া অনেক বেশি ইউজার ফ্রেন্ডলি।

যদি আপনি এক জন ইউটিউবার কিংবা সোশ্যাল পারসন, যে কিনা রীতিমতো ভিডিও আপলোড করে, ফেসবুক পেজে কিংবা ইউটিউবে। তাহলে আপনাকে Kinemaster Diamond অ্যাপ্লিকেশনটি ব্যবহার করতে হবে। সুন্দর করে এডিট করার জন্য। কাইনমাস্টার ডায়মন্ড আপনি ভিডিও এডিটিং করার সকল ফিচার পেয়ে যাবেন। এখানে বিভিন্ন ধরনের ভার্সন আছেঃ Green Kinemaster ভার্সনে আপনি একই ফাংশন পাবেন। তবে ভিন্ন তরিকায় ভিডিও এডিটিং করা যায়।

কাইনমাস্টার ডায়মন্ড অ্যাপ্লিকেশনটির লঞ্চ হওয়ার সাথে সাথেই ব্যাপক জনপ্রিয়তা পায়। এর ভিডিও এডিটর টুলসগুলো যেকোন ভিডিও এডিটিং এর জন্য বেস্ট। নিজের পছন্দমত ভিডিও এডিট করে নিতে পারা যায়।

নাম

Kinemaster Diamond

ফাইল সাইজ

49 MB

ডেভেলপার

Kinemaster

প্রাইস

FREE

ক্যাটাগরি

Video Editor

এন্ড্রয়েড ভার্সন

4.1+

সর্বশেষ আপডেট

17 June, 2021আপনি কাইনমাস্টার অ্যাপ্লিকেশনটি ডাউনলোড করতে চান, তাহলে সঠিক জায়গায় এসে গেছেন। এখান থেকে সহজে ডাউনলোড করে নিতে পারবেন। এর জন্য কিছু স্টেপ অনুসরন করতে হবে। অরিজিনাল কাইনমাস্টার ডায়মন্ড অ্যাপ্লিকেশনটি ডাউনলোড করে নিতে।

এই লেখার নিচের ডাউনলোড বাটনে আছে। সে ডাউনলোড বাটনে ক্লিক করলে, কোন ঝামেলা ছাড়াই সরাসরি ডাউনলোড করতে পারবেন। এবং ডাউনলোড কিছুসময়ের মধ্যেই ডাউনলোড শুরু হয়ে যাবে। এবং ভালো স্পিডে ডাউনলোড করতে পারবেন। যে মাত্র ডাউনলোড কমপ্লিট হয়ে যাবে, তখনই আপনাকে ইনস্টল অপশনে ক্লিক করতে হবে। এমনকি স্মার্টফোনে এপটির যত পারমিশন লাগে, সেগুলো এলাও করে নিতে হবে।

এটি যদিও একটি third-party টুলস ও এপ। তবে খুবই ভালো এবং মোবাইল ফ্রেন্ডলি।

কিভাবে কাইনমাস্টার ডায়মন্ড এপ ব্যবহার করতে হয়?

কাইনমাস্টার প্রো এর হুবহু অবিকল কাইনমাস্টার ডায়মন্ড। তবে কোনো কাইনমাস্টার প্রো তে রকমের ফিচার নেই বললেই চলে। সবগুলো ফিচারেই প্রেমিয়াম লাগিয়ে রেখেছে, যেগুলো ব্যবহার করতে টাকা লাগে। কিন্তু Kinemaster Pro Apk এপে এসকল প্রেমিয়াম ফিচারগুলো ফ্রীতে অন করা আছে। আর সুন্দর এডিটিং করার পারফরম্যান্স দেখায়।

KineMaster Diamond বিভিন্ন ফিচারঃ

ইউটিউব, ফেসবুক অথবা ইনস্টাগ্রামের ভিডিও এর জন্য আমরা সবাই জানি, কাইনমাস্টার ডায়মন্ড হল সবচেয়ে বেশি বিখ্যাত। এটি ভালো অ্যান্ড্রয়েড এডিটিং টুলস। আপনি অ্যান্ড্রয়েডে চাইলে ভিডিও এডিটিং করতে পারেন পিসির স্টাইলে।

কাইনমাস্টার ডায়মন্ডের কিছু ফিচার তুলে ধরছি। সম্পূর্ণ দেখুন। কাইনমাস্টারে এডিটিং করার বিশেষ বিশেষ ফিচার আছে। সে ফিচারগুলো প্রেমিয়াম। কিন্তু আপনাকে ফ্রিতে এনেবেল দিয়ে দিবে, অর্থাৎ অ্যাক্সেস করার সুবিধা দিবে।

১) কোন ওয়াটারমার্ক ছাড়া ভিডিও এডিটিং

(No watermark)

কাইনমাস্টার প্রো তে আমরা কি দেখতাম? যে যেকোনো একটি ভিডিও এডিটিং করার পরে একটি ওয়াটারমার্ক থেকে যেত। সে ওয়াটারমার্ক কে সরানোর জন্য প্রেমিয়াম ভার্শন ক্রয় করতে হতো। যেটি আরো বেশি এক্সপেন্সিভ। অথচ কাইনমাস্টার ডায়মন্ড এপে কোনো ওয়াটারমার্ক থাকবেই না। শত ভাগ গ্যারান্টি।  প্রেমিয়াম ভার্শন এর ফ্রি ভার্সন হলো এই এপ। তাই ওয়াটারমার্ক কখনোই থাকে না।

এ প্রেমিয়াম ফিচারটির সুবিধা আপনি ফ্রিতে পাবেন।

২) সকল প্রেমিয়াম ফিচার সম্পূর্ণ ফ্রি!

কাইনমাস্টার প্রো অ্যাপ্লিকেশনে আমরা কী দেখতাম? যখন কোনো একটি বিশেষ ইফেক্ট দিতে হতো। কিংবা বিভিন্ন ফিচারগুলো প্রায়ই প্রেমিয়াম থাকতো।

কাইনমাস্টার প্রো তে যে সকল প্রেমিয়াম ফিচার ছিল, অর্থাৎ যেগুলো ক্রয় করতে হতো। টাকার বিনিময়ে আনলক করা যেত। এ সকল কিছুই কাইনমাস্টার ডায়মন্ড অ্যাপ্লিকেশনে সম্পূর্ণ ফ্রি। এগুলোতে আপনি সরাসরি অ্যাক্সেস করতে পারবেন। কাইনমাস্টার ওয়াটারমার্ক ছাড়া এডিট করতে পারবেন।

পাশাপাশি ব্যবহার করতেও পারবেন। কোন টাকা পে করতে হবে না।

সবাই জানে যে, প্রেমিয়াম ফিচার এবং টুলগুলোর অ্যাক্সেস পেতে পে করতে হয়। কিন্তু কাইনমাস্টার ডায়মন্ডে সেগুলো ফ্রিতে নিয়ে নেয়া যায়। কোন রকমের পে করা ছাড়াই।

৩) ফ্রী Chroma Key

ক্রোমা কী( chroma key) অনেক বেশি গুরুত্বপূর্ণ ভিডিও এডিটিং এর জন্য। আপনি যদি ব্যাকগ্রাউন্ড চেঞ্জ করতে চান, কোন ধরনের ব্যাকগ্রাউন্ড দিতে চান, তার জন্য আপনাকে ক্রোমা কী এনেবেল করতে হবে। মজার ব্যাপার হলো, এই কাইনমাস্টার ডায়মন্ড আপনি chroma key এনেবল পাবেন।

৪) সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করা যায়।

এই অ্যাপ্লিকেশনটির একটিফিচার আছে তাহলোঃ আপনি ডিরেক্টলি সোশ্যাল মিডিয়া, যেমনঃ ফেসবুক, ইনস্টাগ্রাম এবং ইউটিউবে শেয়ার করতে পারবেন। ধরুন ভিডিও রেটিং সম্পন্ন হয়ে গেল। সাথে সাথে শেয়ার করে দিলেন ইউটিউবে। বাড়তি ঝামেলা ছাড়াই।

এভাবে কোনোভাবে যদি ভিডিও তৈরি করে নিতে পারেন, পাশাপাশি এডিটিং সম্পন্ন হয়ে যায়। তবে কাইনমাস্টার Share থেকে সরাসরি ইউটিউবে পাব্লিস করানো যায়।

৫) ভিডিওতে কাস্টম মিউজিক এবং শব্দ লাগানো যায়।

সকল ভিডিও এডিটিং টুলস এর মত এই অ্যাপ্লিকেশনটি ব্যবহার করে ভিডিওতে কাস্টম, অর্থাৎ আলাদা মিউজিক এড করার সুবিধা পাওয়া যায়। খুব সহজেই আপনি সেটি করতে পারবেন।

৬) ভিডিও দ্রুত Export ও High Quality

ভিডিও এক্সপোর্ট করুন হাই কোয়ালিটিতে। এবং দ্রুত গতিতে।

এখানে ভিডিও এক্সপোর্ট করা খুবই সহজ। আপনাকে শেয়ার অপশনে ক্লিক করতে হবে। তারপর সেখানে এক্সপোর্ট অপশন থাকবে। সেখানে ক্লিক করলে আপনার গ্যালারিতে ভিডিওটি চলে আসবে।

কাইনমাস্টার ডায়মন্ডে অনেক দ্রুত গতিতে, হাই কোয়ালিটি পিক্সেলে সেভ করা যায়। আপনি জেনে নিতে পারবেন। high-quality ফরম্যাট 4k, 2160p, এবং  30FPS দ্রুতগতিতে এক্সপোর্ট করা যায়।

৭) Built-in ক্যামেরা আছে।

এই ভিডিওটি অ্যাপ্লিকেশন একটি বিল্ট-ইন ক্যামেরা আছে। সে ক্যামেরা দিয়ে ভিডিও সরাসরি রেকর্ড করতে পারবেন। আপনারা কাইন মাস্টার ডায়মন্ড বিভিন্ন ফিচার উপভোগ করতে পারবেন। পাশাপাশি ক্যামেরা  ভিডিও রেকর্ড করার সময় ফিচার এড করতে পারবেন।

৮) Sticker ও Emojis এর কালেকশন

এখানে কয়েকশো ইমোজি এবং স্টিকার আছে। বিভিন্ন ধরন অনুযায়ী ভিডিওতে ব্যবহার করতে পারেন আপনার পছন্দমত।

৯) Effects

এখানে আপনি স্লো মোশন ইফেক্ট দিতে পারেন। একেবারে লোডাউন ইফেক্ট দেয়া যায়। খুব সহজে ফাস্ট মুড দিয়ে ভিডিও ডিউরেশন বাড়ানো যায়।

১০) একাধিক ক্লিপ এড করা ও ভিডিও কাটঃ

এখানে আপনি ভিন্ন ভিন্ন ক্লিপস এড করে লাগাতে পারেন। একাধিক কাট করা ভিডিও একসাথে এড করতে পারবেন। পাশাপাশি একটি ভিডিওর মাঝখানে বা যেকোনো জায়গায় কাট করে আলাদা করে দিতে পারবেন।

১১) ইন্সট্যান্ট প্রিভিও(preview) দেখুন।

এখানে আছে ইনস্ট্যান্ট প্রিভিউ। মানে আপনি ভিডিও এডটিং করার সাথে সাথেই সেটা একবার  দেখা নিতে পারেন যে, কিরম এডিটিং হয়েছে। এছাড়া আপনি একদম শেষে ভিডিও প্রিভিও করতে পারবেন। যেটি ভিডিও এডিটর দের কাছে অনেক বেশি জনপ্রিয়।

১২) ইমেজ ফরম্যাটের তালিকা

  • JPEG
  • PNG
  • WebP
  • BMP
  • GIF

১৩) গান/ অডিও ফরম্যাটঃ

MP3

M4A

AAC

WAV

১৪) ভিডিও এক্সপোর্ট করার ফরম্যাটঃ

MP4 সাথে H.264 + AAC LC

১৫) অন্যান্য ফিচার

  1. Precise frame-by-frame trimming
  2. Hue, brightness,
  3. saturation controls
  4. Blur, mosaic
  5. Speed control

১৬) এখানে আছে অসংখ্য এনিমেশন এবং ভিজুয়াল ইফেক্ট। অডিও ইফেক্টও পেয়ে যাবেন।

Kinemaster Diamond ইন্সটলের জন্য প্রয়োজনীয়তা কি কি?

অ্যাপ্লিকেশনটি মোবাইলে ইন্সটল করার তেমন কোনো বেশি রিকোয়ারমেন্ট নেই। আপনি যে কোন একটি নরমাল মোবাইলে বা অ্যান্ড্রয়েড স্মার্টফোনে ইনস্টল করে নিতে পারবেন। এবং সহজে ব্যবহার করা যায়। কোন প্রকার ল্যাগিং ছাড়াই। কাইনমাস্টার ওয়াটারমার্ক ছাড়া এডিট করতে পারবেন।

যেমনটা আমরা সবাই জানি, কাইনমাস্টার ডায়মন্ড একটি টপ রেটেড ভিডিও এডিটিং টুলস। এটি আমার এন্ড্রয়েড ফোনে ব্যবহার করে সহজেই ভিডিও এডিট করতে পারি। আপডেট লেটেস্ট ভার্সনটি আমি আপনাদের মাঝে শেয়ার করছি। অবশ্যই ডাউনলোড করে ব্যাবহার করে দেখে নিবেন। কাইনমাস্টার প্রো অ্যাপ্লিকেশনে একাধিক  mp4 এর সকল ফিচার ই এখানে ফ্রীতে দেওয়া আছে।

আবার এটি সম্পূর্ণ কাইনমাস্টার প্রেমিয়াম ভার্শন এর ফ্রী ভার্শন। কাইনমাস্টার ডায়মন্ডে অসংখ্য ফিচার পাবেন।  অসংখ্য ইউজার এই অ্যাপ্লিকেশন ব্যবহার করে অ্যান্ড্রয়েডে এডিট করছে। কাজেই আপনি এই ভিডিও এডিটিংকে ব্যবহার করবেন।

তাছাড়া যদি আপনি হন একজন ইউটিউবার কিংবা সোশ্যাল পেজ পারসন। যারা সোশ্যাল পেজে ভিডিও আপলোড করে। তাহলে এই অ্যাপ্লিকেশনটি এডিটিং এর জন্য বেস্ট হবে। তাছাড়া যদি নিজের প্রেজেন্টেশন কিংবা ছোট ভিডিও ক্লিপ তৈরি করতে চান, তবে সেটি আপনার জন্য বেস্ট।

Article Categories:
Android apps/tips

Comments are closed.

close