Friday , October 18 2019
Home / SEO / গুগলে ব্যাক লিষ্ট হবার কারন ও সমাধান

গুগলে ব্যাক লিষ্ট হবার কারন ও সমাধান

গুগলের পেইজ র‌্যাংক পেতে অনেকের মাথা হেট হয়ে যায়। ব্যাক লিংক, ভাল ইউনিক কনটেন্ট, কীওয়ার্ড ইত্যাদির ঝামেলা পোহাতে হয় অনেকের। তবে গুগল অনেক সময় পেইজ র‌্যাক দিতে ঝামেলা করে এবং বেশ কিছু ওয়েবকে কালো তালিকায় ফেলে দেয়। এছাড়া তারা বেশ কিছু শব্দও গুগল তার সার্চে সংযত করে রাখে।

যে কোন শব্দ লিখতে গেলেই গুগল তার সাজেশন দেখালেও সেসব শব্দে তা দেখায় না ও সার্চে সাধারন নিয়ম অনুযায়ী ফলাফল না দেখিয়ে বাছাই করে করে পলাফল দেখায়। আর যারা গুগলের এই নীতিব্যাক লিংক হবার কারন ও সমাধান গুগলে ব্যাক লিষ্ট হবার কারন ও সমাধানসম্পর্কে না জেনে ব্লগ ও কীওয়ার্ড দিয়ে পোষ্ট করে তাদের প্যাজ র‌্যাংক পেতে সমস্যা হতেই পারে।

গুগল ব্লাক লিষ্ট করার কারন কি?

গুগল সাধারনতঃ পর্নোগ্রাফীর কথা মাথায় রেখে সার্চে অনেকগুলোকে বাছাই করে করে প্রকাশ করা হয়। সার্চের ব্লাক লিষ্টের বেপারে গুগলের ভাষ্য হলো “একটি টপিকের সার্চ ফলাফল অনেকগুলো বিষয়ের উপরে নির্ভর করে। আর কয়েকটি শব্দ বা শব্দ সমষ্টির উপরে সয়ংক্রিয়ভাবে আলাদা নজরদারী করা ও ফলাফল বাদ দিয়ে প্রকাশ করা একটা ঝামেলার কাজ। প্রতিদিন মিলিয়নের বেশি সার্চ হচ্ছে এবং সার্চ ফলাফলে জটিল এলগরিদমও দিন দিন উন্নত থেকে উন্নত করা হচ্ছে। সেইসাথে ব্লাক লিষ্টের ফরাফলে কি কি বাদ পরবে তার এলগরিদম ভিজিটরদের মতামত নিয়ে আরও উন্নয়ন করা হবে। আমাদের এলগরিদম শুধু মাত্র কোন একটি শব্দের জন্যই নয় বেশ কিছু শব্দ সমষ্টির জন্যও কাজ করে। তাছাড়া ভিন্ন ভিন্ন ভাষার দিকেও খেয়াল রাখতে হয়। একই শব্দ এক এক এলাকায় এক এক অর্থ প্রকাশ করে। তাই এটা আরও ঝামেলার যা দিন দিন আরও উন্নত হবে।”

Check Also

নির্দিষ্ট সময়ে পিসিকে যেভাবে অটো শাট ডাউন করবেন

বর্তমান যুগ অটোমোশনের যুগ। কম্পিউটারের প্রায় সব কাজকেই এখন অটোমোশনের আওতায় নিয়ে আশাকরি এবং বন্ধ …